ভারত বনাম বাংলাদেশ – সুপার এইট টিম লাইনআপ এবং ম্যাচের পূর্বাভাস

ভারত বনাম বাংলাদেশ

সম্প্রতি বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্বের খেলা সমাপ্ত হয়েছে। ইতিমধ্যেই আটটি দল সেরা আট পর্বে খেলার জন্য নিজেদের কোয়ালিফাই করতে সক্ষম হয়েছে। আজ থেকে শুরু হতে যাচ্ছে সুপার এইট পর্বের খেলা। যেখানে প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি হবে যুক্তরাষ্ট্র এবং দক্ষিণ আফ্রিকা। বিশ্বকাপে গ্রুপ পর্বে নাটকীয়তার মধ্য দিয়েই সেরা আট পর্বে জায়গা করে নেয় বাংলাদেশ। তবে দ্বিতীয় পর্বে বাংলাদেশের সামনে রয়েছে বড় চ্যালেঞ্জ। বাংলাদেশ তাদের দ্বিতীয় ম্যাচে মুখোমুখি হবে শক্তিশালী ভারতের। আজকের নিবন্ধে বাংলাদেশ বনাম ভারতের মধ্যকার উক্ত ম্যাচের বিস্তারিত তথ্য থাকছে। এছাড়াও থাকছে ভারত বনাম বাংলাদেশ মধ্যকার ম্যাচে বিশেষজ্ঞদের করা ভবিষ্যৎবাণী। চলুন তাহলে শুরু করা যাক।

ভারত বনাম বাংলাদেশ টিম লাইনআপ

বাংলাদেশ ও ভারতের বিশ্বকাপ স্কোয়াড অনেক আগেই প্রকাশিত হয়েছে।

নিচে দুটি দেশের সম্ভাব্য টিম লাইনআপ প্রকাশ করা হলো। তবে এই লাইনআপে পরিবর্তন দেখা যেতে পারে।

ভারতের বিপক্ষে বাংলাদেশের সম্ভাব্য একাদশ

নাজমুল হোসেন শান্ত (অধিনায়ক), তাসকিন আহমেদ, লিটন দাস, তানজিদ হাসান তামিম, সাকিব আল হাসান, তাওহিদ হৃদয়, মাহমুদ উল্লাহ রিয়াদ, জাকের আলী অনিক, রিশাদ হোসেন, মুস্তাফিজুর রহমান, তানজিম হাসান সাকিব।

বাংলাদেশের বিপক্ষে ভারতের সম্ভাব্য একাদশ

রোহিত শর্মা(অধিনায়ক), হার্দিক পান্ডিয়া, বিরাট কোহলি, সূর্যকুমার যাদব, ঋষভ পান্ত, শিবম দুবে, রবীন্দ্র জাদেজা, অক্ষর প্যাটেল, আরশদীপ সিং, জাসপ্রিত বুমরাহ, মো. সিরাজ।

সবকিছু ঠিক থাকলে বাংলাদেশ বনাম ভারতের মধ্যকার সেরা আট এর ম্যাচে এই স্কোয়াড দেখা যেতে পারে।

হেড টু হেড বিশ্লেষণ

এই পর্যায়ে বাংলাদেশ বনাম ভারতের মধ্যকার বিগত ম্যাচ পরিসংখ্যান বিশ্লেষণ করতে চলেছি। দেখা যাক বিগত টি-টোয়েন্টি এবং টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ আসরে কোন দল এগিয়ে রয়েছে জয়ের হিসেবে।

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের মঞ্চে বাংলাদেশ এবং ভারত সর্বমোট মুখোমুখি হয়েছিল ৪ বার।

যেখানে প্রত্যেকবারই জয়ের হাসি হেসেছিল ভারত।

অন্যদিকে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে টি-টোয়েন্টি সিরিজে দুটি দল মুখোমুখি হয়েছিল সর্বমোট ১৩ ম্যাচে।

যেখানে ভারত জয় পেয়েছিল ১২টি ম্যাচে এবং বাংলাদেশ জয় পেয়েছিল কেবল ১টি ম্যাচে।

বিশ্বকাপ এবং ঘরোয়া সিরিজের পরিসংখ্যানের দিক থেকে বাংলাদেশের তুলনায় অনেকটাই এগিয়ে রয়েছে ভারত।

টি-টোয়েন্টি ফরমেটে অনেকবার জয়ের কাছাকাছি গিয়েও কপাল পুড়েছে বাংলাদেশের।

দেখার জন্য মূল খেলোয়াড়

ভারত বনাম পাকিস্থানের ম্যাচকে অনেকেই ক্রিকেটের এল ক্লাসিকো নামে জেনে থাকে। তবে ভারত বনাম বাংলাদেশ এর ম্যাচও কোন অংশে কম নয়।

পাশাপাশি অবস্থিত দুটি দেশের ম্যাচ মানেই দর্শকদের মাঝে এক নতুন উন্মদনার সৃষ্টি।

এক্ষেত্রে যদি ম্যাচ হয় বিশ্বকাপের মত বড় মঞ্চে, তবে দর্শকদের উন্মদনা কয়েক গুণ বেশি থাকে।

ভারত বনাম বাংলাদেশের ম্যাচে ৫ জন খেলোয়াড়ের উপর বিশেষ নজর থাকবে। নিচে তাদের পরিচিতি তুলে ধরা হলো।

১. মুস্তাফিজুর রহমান

বর্তমান সময়ে বাংলাদেশ দলের সবচেয়ে নির্ভরযোগ্য একজন বোলার হচ্ছে মুস্তাফিজুর রহমান। যেকোন কঠিন পরিস্থিতিতে দলের প্রয়োজন অনুযায়ী বল করে থাকছেন এই বাঁহাতি পেসার। মুস্তাফিজুর গত আইপিএলে দুর্দান্ত পারফরম্যান্স দেখিয়েছিলেন।

চেন্নাই সুপার কিংসের হয়ে নিয়েছেন বেশ কয়েকটি উইকেট।

দুর্দান্ত এই ফর্ম ফিজ বজায় রাখলেন বিশ্বকাপের মত বড় মঞ্চেও। বিশ্বকাপে এখন পর্যন্ত ফিজ শিকার করেছেন ৭ টি উইকেট।

যার মাধ্যমে নাম লিখিয়েছেন সেরা ১০ বোলারের তালিকায়।

বাংলাদেশ বনাম ভারতের ম্যাচে ফিজের পারফরমেন্সের দিকে নজর থাকবে।

২. আরশদীপ সিং

ভারতের অন্যতম একজন পেসার আরশদীপ সিং। বিশ্বকাপে ভারতের হয়ে এখন পর্যন্ত উইকেট শিকার করেছেন সর্বমোট ৭টি। এছাড়াও চলতি বছর আইপিএলে পাঞ্জাবের হয়ে সর্বোচ্চ উইকেট শিকার করেন এই পেসার।

২০২৪ আইপিএলে পাঞ্জাব কিংসের হয়ে সর্বমোট ১৯টি উইকেট শিকার করেন আরশদ্বীপ সিং।

বাংলাদেশ বনাম ভারতের মধ্যকার ম্যাচে ভারতীয় এই পেসারের পারফরম্যান্সের দিকে নজর থাকবে।

৩. ঋষব পান্ত

ভারতীয় ক্রিকেটার এক উজ্জ্বল নক্ষত্র ঋষব পান্ত। সর্বদা চোখ ধাঁধানো সব শট খেলে দর্শকদের মাতিয়ে রাখেন এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যান।

বর্তমান সময়ে দুর্দান্ত ফর্মে রয়েছে এই বাঁহাতি ব্যাটসম্যান।

বিশ্বকাপে ভারতের হয়ে সর্বোচ্চ রান করেছেন পান্ত। ৩ ম্যাচ খেলে এখন পর্যন্ত রান সংগ্রহ করেছেন ৯৬।

এছাড়াও চলতি বছরে আইপিএলে দুর্দান্ত পারফরম্যান্স করেছিলেন তিনি। ১৩ ম্যাচ খেলে ৪৪৬ রান করেছিলেন পান্ত।

৪. তাওহীদ হৃদয়

তাওহীদ হৃদয়কে ভবিষ্যৎ স্টার বলা হয়ে থাকে। যেকোন কঠিন পরিস্থিতিতে চোখ ধাঁধানো শট খেলে দলকে জয়ের দিকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারদর্শী এই তরুণ ব্যাটসম্যান। যেকোন সময় প্রতিপক্ষ বোলারদের জন্য হুমকি হয়ে উঠতে পারে এই তরুণ ব্যাটসম্যান। বিশ্বকাপে ভারতের বিপক্ষের ম্যাচে তার উপর নজর থাকবে।

ভারত বনাম বাংলাদেশ – ম্যাচ কৌশল

বাংলাদেশ এবং ভারতের মধ্যকার ম্যাচ মানেই খেলার মাঠে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বীতা। আর তাই ম্যাচ পূর্ববর্তী বিভিন্ন কৌশল পরিকল্পনা করা হয় দুটি দলের মধ্যে। চলমান বিশ্বকাপে একটি বিশেষ লক্ষণীয় দিক রয়েছে।

এখানে কম রানেও ম্যাচ জয়ের ট্রেন্ড লক্ষ করা যায়। যেমনটি দেখা যায় ভারত বনাম পাকিস্থানের মধ্যকার ম্যাচে।

যেখানে ভারত কেবল ১১৯ রানের টার্গেট দিয়ে ম্যাচ জয় করেছিল।

একই চিত্র দেখা যায় বাংলাদেশ বনাম নেপালের মধ্যকার ম্যাচে।

১০৭ রানের টার্গেট দিয়েও নেপালের বিপক্ষে ম্যাচ জয় করেছিল বাংলাদেশ।

আর তাই দুটি দলের বোলিং বিভাগকে কেন্দ্র করেই ম্যাচ কৌশল প্রবর্তন করা হবে অনেকটা।

বিশেষজ্ঞের মতামত এবং ভবিষ্যদ্বাণী

বিগত হেড টু হেড পারফরম্যান্স এবং বর্তমান ফর্ম বিবেচনায় বাংলাদেশ এবং ভারতের মধ্যকার সেরা আট পর্বের ম্যাচে বিশেষজ্ঞদের মতামত অনুযায়ী ভারতের জয় হবে। এক্ষেত্রে যদি দুটি দলের মধ্যকার ম্যাচ পার্সেন্টেজ হিসেব করা হয় তবে ভারতের জয়ের সম্ভবনা ৬৫ শতাংশ, অন্যদিকে বাংলাদেশের ৩৫ শতাংশ।

তবে চলমান বিশ্বকাপে বেশ কয়েকটি চমক দেখা যাচ্ছে।

এই তাই বাংলাদেশ বনাম ভারতের মধ্যকার ম্যাচে এই ধরনের চমক দেখা যেতে পারে।

উপসংহার

আজকের নিবন্ধে ভারত বনাম বাংলাদেশ পূর্ববর্তী ম্যাচ ইতিহাস এবং সুপার এইট ম্যাচের ভবিষ্যদ্বাণী প্রদান করা হয়েছে।

আপনার কাছে কোন দল জয়ের সম্ভবনার দিক থেকে এগিয়ে রয়েছে সেটি আমাদের জানিয়ে দিতে পারেন। বিশ্বকাপের সকল আপডেট সবার আগে পেতে সাথেই থাকুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *